প্রথমবার সাংসদ হয়েই মন্ত্রীত্ব পেলেন ফারুক রেজাউল Latest Update News of Bangladesh

বুধবার, ২১ এপ্রিল ২০২১, ০১:১৬ অপরাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
Latest Update Bangla News 24/7 আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি ভয়েস অব বরিশালকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] অথবা [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।*** প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে!! বরিশাল বিভাগের সমস্ত জেলা,উপজেলা,বরিশাল মহানগরীর ৩০টি ওয়ার্ড ও ক্যাম্পাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! ফোন: ০১৭৬৩৬৫৩২৮৩
সংবাদ শিরোনাম:
মানুষ হওয়ার গল্প বরিশালে মেয়র সাদিকের সহযোগীতায় ছিন্নমূলদের খাওয়ালো সাংবাদিকরা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত নায়ক আলমগীর হাসপাতালে নলছিটিতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন, ড্রেজার মালিককে ৬০ হাজার টাকা জরিমানা ভোলায় জ্ঞাত রোগে ২o দিনে ৪o মহিষের মৃত্যু, আক্রান্ত আরও অর্ধশত করোনা: ভোলায় ইফতার নিয়ে শ্রমজীবী মানুষের পাশে ছাত্রলীগ স্বাস্থ্যবিধি না মানায় অপরাধে কাউখালীতে ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা আমতলীতে দিন-দুপুরে বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যা গৌরনদী উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ফরহাদ মুন্সী করোনা টিকার ২য় ডোজ নিলেন পটুয়াখালীতে খাবারের প্রলোভন দেখিয়ে বাক প্রতিবন্ধি শিশুকে ধর্ষণ, বৃদ্ধ গ্রেফতার




প্রথমবার সাংসদ হয়েই মন্ত্রীত্ব পেলেন ফারুক রেজাউল

প্রথমবার সাংসদ হয়েই মন্ত্রীত্ব পেলেন ফারুক রেজাউল




নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ প্রথমবার সাংসদ নির্বাচিত হয়েই বরিশাল বিভাগের দু’জন সাংসদ মন্ত্রীত্ব পেলেন। তবে বরিশাল সদর আসনে ৩২ বছর পর মন্ত্রীর দায়িত্ব পেয়েছেন সদ্য নির্বাচিত সাংসদ কর্নেল (অবঃ) জাহিদ ফারুক শামীম। নতুন মন্ত্রিসভায় বরিশাল-৫ আসনের সাংসদ কর্নেল (অব.) জাহিদ ফারুককে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

 

 

 

অপরদিকে পিরোজপুর-১ আসন থেকে নির্বাচিত সাংসদ শ ম রেজাউল করিম গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রনালয়ের পূর্ণ মন্ত্রীর মর্যাদা পেয়েছেন। এ দুজনই এবার প্রথমবার সাংসদ হয়েছেন। দীর্ঘ বছর সদর আসনের সাংসদ মন্ত্রীত্ব পাওয়ায় আনন্দে ভাসছেন দলীয় কর্মী সমর্থকরা।

 

 

দলীয় সূত্রে জানা যায়, প্রয়াত রাষ্ট্রপতি আবদুর রহমান বিশ্বাস বরিশাল সদর আসনে ১৯৭৯ সালের সাধারণ নির্বাচনে এই আসনের সাংসদ নির্বাচিত হন। ১৯৭৯-৮০ সময়ে তিনি রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের মন্ত্রিসভায় পাটমন্ত্রী ছিলেন। ১৯৮১-৮২ সালে রাষ্ট্রপতি বিচারপতি আবদুস সাত্তারের মন্ত্রিসভায় তিনি স্বাস্থ্যমন্ত্রী ছিলেন।

 

 

 

এরপর ১৯৯১ সালে বাংলাদেশে সংসদীয় শাসনব্যবস্থা প্রবর্তনের পর তিনি রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হন। এরপর ১৯৮৬ সালে জাতীয় নির্বাচনে বরিশাল সদর আসন থেকে সাংসদ হন সাবেক সচিব মতিউর রহমান। তিনি ওই সময় জাতীয় পার্টি সরকারের যোগাযোগমন্ত্রী ছিলেন।

 

২০০১ সালে ২০ দলীয় জোট সরকার ক্ষমতায় আসার পর বিএনপির মজিবর রহমান সরোয়ার জাতীয় সংসদের হুইপ হন। আওয়ামী লীগের সূত্র জানায়, ২০০৮ সালে নবম জাতীয় নির্বাচনে বরিশাল সদর আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন জাহিদ ফারুক।

 

 

ওই নির্বাচনে বিএনপির মজিবর রহমান সরোয়ার ১ লাখ ৫ হাজার ভোট পেয়ে জয়ী হন। আর জাহিদ ফারুক পান ৯৯ হাজার ৩৯৩ ভোট। ২০১৪ সালে জাহিদ ফারুক আর এই আসনে মনোনয়ন পাননি।
একাদশ জাতীয় নির্বাচনে এবার তাঁকে মহাজোটের মনোনয়ন দেওয়া হয়।

 

 

এবার তিনি ২ লাখ ১৫ হাজার ভোট পেয়ে জয়ী হন। এবার তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন বিএনপির মজিবর রহমান সরোয়ার। জাহিদ ফারুক বলেন, তাঁকে মন্ত্রিসভায় স্থান দেওয়ায় তিনি প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানান।

 

 

তিনি চলমান উন্নয়নের ধারা বজায় রাখতে ও দক্ষিণের জনগণের জন্য কাজ করে যাবেন।

সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করুন



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *










Facebook

Shares
© ভয়েস অব বরিশাল কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed BY: AMS IT BD
Shares